আজ শুক্রবার, ৩০শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১৫ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

বাজেট শেষে ভ্যাট নিয়ে আলোচনা কম হয়

খবর ডেস্কঃ প্রতি বছর বাজেট শেষে ভ্যাট নিয়ে সবচেয়ে কম আলোচনা হয় বলে মনে করেন ট্যাক্সহাউজ বাংলাদেশ লিমিটেডের এমডি ও সিইও মোহাম্মদ কামরুজামান। আসন্ন ২০২১-২২ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেট নিয়ে দ্য অ্যাসোসিয়েশন অব চার্টার্ড সার্টিফায়েড অ্যাকাউন্ট্যান্টস (এসিসিএ) বাংলাদেশ এক ভার্চুয়াল গোলটেবিল বৈঠকে তিনি এসব কথা বলেন। প্রতিষ্ঠানটির এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বৈঠকে তিনি আরও বলেন, ২০১৯ সালে নতুন ভ্যাট প্রণয়ন করা হয়। কিন্তু গত তিন বছরে সরকারের পদক্ষেপগুলো দেখলে মনে হয় আমরা পিছিয়ে আবার ১৯৯১ অ্যাক্টের দিকে চলে যাচ্ছি। এ বাজেটেও সেটাই দেখা যাচ্ছে।

মোহাম্মদ কামরুজামান বলেন, আমরা ৭ বছর কাজ করে নতুন আইন আনলাম কিন্তু তাতে মানুষের কোন উপকারই হচ্ছেনা। আমারা আবার আগের অবস্থানেই ফিরে যাচ্ছি। ট্যাক্স ফাঁকির উপর ২০০ শতাংশ জরিমানা ছিল। এবার তা কমিয়ে আনা হয়েছে। কম জরিমানার কারণে ট্যাক্স ফাঁকির প্রবণতা বাড়বে।

তিনি বলেন, নতুন আইন অনুযায়ী ৯১ অ্যাক্টে অ্যাডভ্যান্স ট্যাক্স হিসেবে কোম্পানির জমা দেওয়া টাকা ক্লেইম করতে পারবে। ইমপোর্টের ক্ষেত্রে ট্যাক্স কমানো হয়েছে যেটি ভাল দিক। কোম্পানি এখন আমদানিকৃত পণ্য যেকোনো স্থানে নিতে পারবে যেটি আগে সম্ভব ছিলনা।

গত ১২ জুন অনুষ্ঠিত এ বৈঠকে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সামিট কমিউনিকেশনসের এমডি এবং সিইও আরিফ আল ইসলাম, পিডব্লিউসি বাংলাদেশের ম্যানেজিং পার্টনার মামুন রশীদ, ইউনিলিভার কনজিউমার কেয়ার লিমিটেডের চেয়ারম্যান মাসুদ খান, এসিসিএ বাংলাদেশের সিনিয়র বিজনেস ডেভেলপমেন্ট ম্যানেজার-লার্নিং শাহ ওয়ালীউল মনজুর, মার্কেটিং ম্যানেজার আব্দুল্লাহ আল হাসান এবং

বিজনেস সার্ভিস ও কমপ্লায়েন্স ম্যানেজার জিএম রাশেদ, সৈয়দা সাদিয়া আফরোজসহ এসিসিএ বাংলাদেশের মেম্বার এবং বিভিন্ন সেক্টরের বিশেষজ্ঞরা।

অনুষ্ঠানটি উপস্থাপনা করেন এসিসিএ বাংলাদেশের হেড অব এডুকেশন প্রমা তাপসী খান এবং আয়োজনে সহায়তা করেন এইস অ্যাডভাইজরি এবং ট্যাক্সহাউজ বাংলাদেশ লিমিটেড।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     আরো সংবাদ

ফেসবুকে খবর২৪ বিডি ডট নেট